চট্টগ্রাম   বৃহস্পতিবার, ১৩ মে ২০২১  

শিরোনাম

কেইপিজেড হাই-টেক পার্কের গ্রাউন্ড ব্রেকিং অনুষ্ঠান (ভার্চুয়াল) সম্পন্ন


কোরবান আলী টিটু, আনোয়ারা প্রতিনিধি    |    ০৬:০১ পিএম, ২০২১-০৪-২১



কেইপিজেড হাই-টেক পার্কের গ্রাউন্ড ব্রেকিং অনুষ্ঠান (ভার্চুয়াল) সম্পন্ন

চট্টগ্রামের আনোয়ারায় অবস্থিত শিল্প প্রতিষ্ঠান কোরিয়ান রফতানি প্রক্রিয়াকরণ জোনের (কেইপিজেড) হাই-টেক পার্কের গ্রাউন্ড ব্রেকিং অনুষ্ঠান (ভার্চুয়াল) সম্পন্ন হয়েছে।

বুধবার (২১ এপ্রিল) সকাল সাড়ে এগোরা টায় কোরিয়ান রফতানি প্রক্রিয়াকরণ জোনের (কেইপিজেড) হাই-টেক পার্কের গ্রাউন্ড ব্রেকিং অনুষ্ঠান (ভার্চুয়াল) এ অনুষ্ঠিত হয়েছে। এসময় হাই-টেক পার্কটি যৌথভাবে উদ্বোধন করলেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জনাব জুনাইদ আহমেদ পলক এমপি, জনাব এলইই জ্যাং-কেইন, বাংলাদেশে নিযুক্ত প্রজাতন্ত্রের রাষ্ট্রদূত ইয়াহোনোন এবং কেইপিজেডের চেয়ারম্যান ও সিইও মিঃ কিহাক সুং।

অন্যান্য অতিথিদের মধ্যে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের ডিজি প্রাইভেট ইপিজেড সেল জনাব এএসএম ফেরদৌস খান, কোরিয়ায় নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মিসেস আবিদা ইসলাম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
 
এটি হাই-টেক শিল্প বিকাশের ক্ষেত্রে কেইপিজেডের একটি উল্লেখযোগ্য দিন ছিল। অত্যাধুনিক হাই-টেক পার্ক স্থাপনের সংস্থার দৃষ্টিভঙ্গি বাস্তবে এসেছে।

যেমনটি আমরা সবাই জানি, রফতানি প্রক্রিয়াকরণ অঞ্চলগুলি (ইপিজেড) একটি দেশের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ মাধ্যম হিসাবে গৃহীত হয়েছে। ইপিজেড গুলি প্রচুর প্রত্যক্ষ ও অপ্রত্যক্ষ কর্মসংস্থান তৈরি করে, প্রযুক্তি স্থানান্তর করতে সহায়তা করে এবং দেশের জন্য বৈদেশিক মুদ্রা অর্জন করে। এফডিআইয়ের উপর জোর দিয়ে দেশের মুক্তবাজার অর্থনীতির নীতিকে সামনে রেখে, বাংলাদেশ সরকার ১৯৯৬ সালে প্রাইভেট ইপিজেড আইন প্রণীত করে, যা ইয়ংগন কর্পসকে নেতৃত্ব নিতে উৎসাহিত করে, বাংলাদেশে একটি বেসরকারী ইপিজেড প্রতিষ্ঠার প্রথম সংস্থা। এক্সপোর্ট প্রসেসিং জোনের প্রচার, বিকাশ ও পরিচালনা করার জন্য ইয়ং ওয়ান কর্পোরেশন ‘কোরিয়ান ইপিজেড (কেইপিজেড) কর্পোরেশন (বিডি) লিমিটেড’ নামে একটি সংস্থা গঠন করেন। বাংলাদেশ সরকার জমি অধিগ্রহণ করে কেইপিজেডকে হস্তান্তর করেছিল। এরপরে জোনটি (কেইপিজেড) যৌথভাবে উদ্বোধন করলেন বাংলাদেশের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা এবং কোরিয়ার প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী এইচ জনাব হান, ডুক-সু। এরপরে কেবল অর্থনৈতিক কর্মকাণ্ড, নগরায়ন ও পরিবেশ বান্ধব ব্যবস্থা সংহতকরণের মাধ্যমে কেবল দেশেই নয় এ অঞ্চলে একটি শীর্ষস্থানীয় শিল্প উদ্যান হিসাবে কেইপিজেডকে গঠনের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছিল।

২০০৯ সালের নভেম্বরে এনভায়রনমেন্ট ক্লিয়ারেন্স সার্টিফিকেট (ইসিসি) পাওয়ার পরে, কেইপিজেড পুরো অঞ্চলটিকে পরিবেশ বান্ধব ইপিজেড হিসাবে রূপান্তরিত করার উদ্যোগ নিয়েছে এবং ততক্ষণে এটি ২.৪ মিলিয়ন (২৪ লক্ষ) গাছ রোপণ করেছে এবং ৫০০ মিলিয়নেরও বেশি সংরক্ষণের ২৫ টি জলাশয় তৈরি করেছে। বর্ষার জলের গ্যালন। জলাশয়গুলি ভূগর্ভস্থ জলজ সমৃদ্ধ করে আশেপাশের গ্রামগুলিকে তাদের কৃষিক্ষেত্র এবং গার্হস্থ্য উদ্দেশ্যে জলের চাহিদা মেটাতে এবং বর্ষার বন্যাকে প্রশমিত করতে সহায়তা করে। হ্রদগুলি প্রতি বছর বিপুল সংখ্যক পরিযায়ী পাখি আকৃষ্ট করে এবং এখনও অবধি ১৩ প্রজাতির পাখিরা এই অঞ্চলে বসতি স্থাপন করেছে।

কেইপিজেড এখনও পর্যন্ত ৫ লক্ষ বর্গফুট মেঝেতে টি আর্ট গ্রিন ফ্যাক্টরির কাজ সম্পন্ন করেছে। প্রায় ১৭ লক্ষ বর্গফুট জায়গার টেক্সটাইল জোনে বড় বড় কারখানা ভবন নির্মাণের জন্য প্রচেষ্টাও করা হয়েছে, যার মধ্যে ৫০ শতাংশ কাজ শেষ হয়েছে এবং বাকী কাজ চলছে। এই কারখানাগুলি মূলত মনুষ্যসৃষ্ট ফাইবার পণ্য তৈরি করবে। সম্পূর্ণরূপে সমাপ্ত হলে, এটি আমদানির বিকল্প এবং পশ্চাদপদ সংযোগ হিসাবে স্থানীয় পোশাক এবং পোশাক রফতানিকারকদের উচ্চমানের কাপড়ের রফতানি এবং সরবরাহের জন্য এটি বাংলাদেশের অন্যতম বৃহৎ টেক্সটাইল হাব হবে।

কেইপিজেড এ পর্যন্ত ৩৮ কেএম সড়ক নেটওয়ার্ক, ৩২ কেএম ওভারহেড বিদ্যুৎ বিতরণ লাইন, ৮ কেএম গ্যাস বিতরণ নেটওয়ার্ক, বিনিয়োগকারী গেস্ট হাউস, মহিলা শ্রমিক ছাত্রাবাস ইত্যাদির অবকাঠামোগত সুবিধাগুলি তৈরি করেছে
 
তদুপরি, কেইপিজেড একটি ৪০ মেগাওয়াট ছাদ সৌর বিদ্যুৎ উৎপাদন প্রকল্প বাস্তবায়ন শুরু করেছে। এটি দেশের বৃহত্তম একক ছাদ সৌর বিদ্যুৎ প্রকল্প এবং বিশ্বব্যাপী শিল্পের মধ্যে তর্কতিত্বে বৃহত্তম ছাদে সৌরবিদ্যুত প্রকল্প হিসাবে বিশ্বাস করা হয়। এ বছরের মধ্যে ১০ মেগাওয়াট ইনস্টলেশন সম্পন্ন হবে এবং বাকি ২৪ মেগাওয়াট যত তাড়াতাড়ি পর্যায়ক্রমে সম্পন্ন হবে। কেইপিজেড কেবলমাত্র টেকসই উপায়ে তার ক্রমবর্ধমান শক্তির চাহিদা মেটাতে সূর্যের শক্তিকে শক্তিশালী করবে না বরং জাতীয় গ্রিডে যে কোনও উদ্বৃত্ত পুনর্নবীকরণযোগ্য শক্তি সরবরাহ করবে, সামাজিক দায়বদ্ধতার প্রতি তার প্রতিশ্রুতি প্রদর্শন করে।
 
এটি যেহেতু এটি শুরু হয়েছে, কেইপিজেডের একটি আইটি জোন স্থাপনের পরিকল্পনা ছিল এবং সেই অনুসারে ১শত একর জায়গা নির্ধারণ করা হয়েছিল। আইসিটির মাননীয় প্রতিমন্ত্রী এবং কোরিয়া প্রজাতন্ত্রের রাষ্ট্রদূতের সদর্থক সমর্থন এবং উদ্যোগের ফলে এই পরিকল্পনাটি কার্যকর হচ্ছে এবং সেই অনুসারে বাংলাদেশ হাই-টেক পার্কের মধ্যে ২০২১ সালের ২২ শে ফেব্রুয়ারিতে ত্রিপক্ষীয় সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত হয়েছে। কর্তৃপক্ষ (বিএইচটিপিএ), কোরিয়ান ইপিজেড এবং স্টার্টআপ বাংলাদেশ লিমিটেডকে নির্বাচিত কেইপিজেড আইটি জোনে একটি হাই-টেক পার্ক গড়ে তুলতে হবে।
 
এই হাই-টেক পার্কটি শিক্ষা, প্রযুক্তি প্রশিক্ষণ এবং মানবসম্পদ উন্নয়নের আকারে প্রয়োজনীয় সহায়তা প্রদান করবে। একটি ডিজিটাল বাংলাদেশ অর্জনের জাতীয় লক্ষ্যকে সামনে রেখে, আইটি সুবিধাগুলি ডিজাইন করা হয়েছে যাতে দেশে সফ্টওয়্যার বিপ্লব সহজতর হয়। আইটি পার্কের প্রাথমিক ধারণাটি অনন্য কর্ম-স্থির সম্পর্ক। বিকাশকারীরা সারা রাত ধরে কাজ করতে পারেন বা তাদের বাড়ি থেকে বাইরে কাজ করতে পারেন। এই আইটি পার্কটির সফল বিকাশের জন্য এই অনন্য কাজের অবস্থান গুরুত্বপূর্ণ।

রিলেটেড নিউজ

ঈদের শুভেচ্ছা জানালেন যুবলীগ নেতা ফোরকান

ঈদের শুভেচ্ছা জানালেন যুবলীগ নেতা ফোরকান

আনোয়ারা (চট্টগ্রাম) প্রতিনিধি : পবিত্র ঈদুল-ফিতর উপলক্ষে আনোয়ারা উপজেলার সর্বস্তরের জনসাধারণ সহ দেশে এবং বিদেশে অবস্থানরত সবাইক...বিস্তারিত


খালেদা জিয়ার রোগ মুক্তি কামনায় আনোয়ারায় ছাত্রদলের ইফতার বিতরণ

খালেদা জিয়ার রোগ মুক্তি কামনায় আনোয়ারায় ছাত্রদলের ইফতার বিতরণ

কোরবান আলী টিটু, আনোয়ারা প্রতিনিধি : বিএনপির চেয়ারপারসন ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়ার রোগমুক্তি ও দীর্ঘায়ু কামনা করে কোরআন খতম, ...বিস্তারিত


আনোয়ারায় জেলা পরিষদের খাদ্য ও ইফতার সামগ্রী বিতরণ

আনোয়ারায় জেলা পরিষদের খাদ্য ও ইফতার সামগ্রী বিতরণ

আনোয়ারা (চট্টগ্রাম) প্রতিনিধি : খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেন চট্টগ্রাম জেলা পরিষদের সদস্য এস.এম আলমগীর চৌধুরী। আনোয়ারা উপজেলার বারখা...বিস্তারিত


বৈরাগ ইউনিয়নের পাঁচশত পরিবার পেলেন প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার

বৈরাগ ইউনিয়নের পাঁচশত পরিবার পেলেন প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার

কোরবান আলী টিটু, আনোয়ারা প্রতিনিধি : করোনায় লকডাউনে বিপাকে পড়া ও পবিত্র ঈদুল ফিতর উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ঈদ উপহার হিসেবে ন...বিস্তারিত


বারশত ইউনিয়নে ৫শত পরিবার পেলেন প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার

বারশত ইউনিয়নে ৫শত পরিবার পেলেন প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার

কোরবান আলী টিটু, আনোয়ারা প্রতিনিধি : করোনায় লকডাউনে বিপাকে পড়া ও পবিত্র ঈদুল ফিতর উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ঈদ উপহার হিসেবে ন...বিস্তারিত


আনোয়ারায় কৃষকের ফোন পেয়ে ধান কেটে ঘরে তুলে দিল ছাত্রলীগ

আনোয়ারায় কৃষকের ফোন পেয়ে ধান কেটে ঘরে তুলে দিল ছাত্রলীগ

কোরবান আলী টিটু, আনোয়ারা প্রতিনিধি : শ্রমিক সংকট ও অর্থ সংকটের কারণে জমির পাকা ধান কাটতে পারছিলেন না চট্টগ্রামের আনোয়ারা উপজেলার বারশ...বিস্তারিত



সর্বপঠিত খবর

আনোয়ারায় মাস্ক না পরায় ১৮ ব্যক্তির জরিমানা

আনোয়ারায় মাস্ক না পরায় ১৮ ব্যক্তির জরিমানা

কোরবান আলী টিটু, আনোয়ারা প্রতিনিধি : চট্টগ্রামের আনোয়ারা উপজেলায় সামাজিক দূরত্ব বজায় না রাখা এবং মাস্ক না পরায় ১৮ ব্যক্তিকে  জরিমানা...বিস্তারিত


সড়কে দুধ ঢেলে প্রতিবাদ

সড়কে দুধ ঢেলে প্রতিবাদ

কর্ণফুলী (চট্টগ্রাম) প্রতিনিধি : দুধের সম্পূরক মূল্য বৃদ্ধি, করোনা পরিস্থিতিতে খামারিদের ক্ষতি, করোনাকালে দুধ বিক্রি না হওয়া, গো-খা...বিস্তারিত



সর্বশেষ খবর